মঙ্গলবার, ১৫ জুন ২০২১, ০৪:৫৭ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
প্রযুক্তি উন্নয়নের হাতিয়ার, তাই অনুকরণের পরিবর্তে উদ্ভাবনে জোর দিতে হবে: রাষ্ট্রপতি চতুর্থ শিল্প বিপ্লবে বাংলাদেশ নেতৃত্ব দেবে: সজীব ওয়াজেদ সুইস রাষ্ট্রদূতকে বাংলাদেশে আরও বিনিয়োগ বাড়ানোর আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর উর্গবাদী সংগঠন দেশে শান্তি বিনষ্টের চেষ্টা করছে: ওবায়দুল কাদের ৮০ হাজার কোটি টাকা খেলাপি শীর্ষ ২৫ ব্যাংকে: বাংলাদেশ ব্যাংক অর্থ পাচারকারীদের আইনের আওতায় আনতে হবে: হাইকোর্ট যুক্তরাষ্ট্র ইরাকে থেকে কূটনীতিকের সংখ্যা কমাল  দেশ চলছে শতভাগ ব্যক্তিতন্ত্রের ওপর: গয়েশ্বর চন্দ্র ‘টেক্সট ফর ইউ’ শিরোনামে হলিউড সিনেমায় প্রিয়াঙ্কা ১১ ডিসেম্বর মুক্তি পাচ্ছে ‘বিশ্বসুন্দরী’  প্রভাস তিন সিনেমায় নিচ্ছেন ৩০০ কোটি! রাজধানীতে ভিপি নূরের নেতৃত্বে মশাল মিছিল বার্সা উড়ছে মেসিকে ছাড়াই  প্রথম জয় বেক্সিমকো ঢাকার  নিরাময়ের বদলে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্রগুলোতে চলে নির্যাতন পৃথিবীর মধ্যে সর্বোচ্চ খরচ বাংলাদেশের প্রতি কি.মি. রাস্তা নির্মাণে সিলেট এমসি কলেজে গণধর্ষণ: ৮ জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট বিনামূল্যের পাঠ্যবই আটকা যাচ্ছে তিন সংকটে শনিবার থেকে অ্যান্টিজেন টেস্ট শুরু হচ্ছে করোনা: বিশ্বে মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ১৪ লাখ ৯৯ হাজার

নারীরা সমবায়ে এগিয়ে আসলে কমবে দুর্নীতি: প্রধানমন্ত্রী

মুক্তকণ্ঠ২৪ ডেস্ক:

 

সমাজের অর্ধেকই নারী। তারা যদি সমবায়ে বেশি করে এগিয়ে আসেন, তাহলে কমবে দুর্নীতি। কাজ বেশি হবে। প্রত‌্যেক পরিবার উপকৃত হবে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এজন্য সমবায় কার্যক্রমে নারীদের অংশগ্রহণ বাড়ানোর আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

 

শনিবার (৭ নভেম্বর) সকালে ‘৪৯তম জাতীয় সমবায় দিবস ২০২০’ ও ‘জাতীয় সমবায় পুরস্কার ২০১৯ প্রদান’ অনুষ্ঠানে তিনি এই আহ্বান জানান।

 

ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি অংশ নেন প্রধানমন্ত্রী।

 

শেখ হাসিনা বলেন, ‘বর্তমানে সমবায় সমিতির মোট সদস্যের মধ্যে মাত্র ২৩ শতাংশ নারী। এই কার্যক্রমে বেশি করে নারীদের এগিয়ে আসা উচিত।’

 

দেশ থেকে দারিদ্র্য নির্মূলে বহুমুখী গ্রাম সমবায় সমিতি গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে সরকার প্রধান বলেন, ‘যদি বহুমুখী গ্রাম সমবায় গড়ে তুলতে পারি, তাহলে দেশে কোনো দারিদ্র্য থাকবে না। এর মাধ‌্যমে দারিদ্র্য সম্পূর্ণ নির্মূল হবে।’

 

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাধ্যতামূলক বহুমুখী সমবায়ের কথা বলেছেন উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘জাতির পিতা জানতেন, কিভাবে বাংলাদেশের উন্নতি হবে।’

 

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সরকারের প্রচেষ্টায় সমবায় সমিতি ও সমবায়ীর সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে। বর্তমানে সমিতির সংখ্যা ১ লাখ ৯০ হাজার ৫৩৪টি। আর সদস্য সংখ্যা ১ কোটি ১৪ লাখ ৮৩ হাজার ৭৪৭ জনে উন্নীত হয়েছে।’

 

শেখ হাসিনা আরও বলেন, ঋণের সুবিধার জন্য যাতে কাউকে দেশান্তরিত হতে না হয়, সেজন্য ক্ষুদ্র ঋণ ও সঞ্চয়ের ব্যবস্থা করেছে সরকার। কোন জায়গা যাতে অনাবাদি না থাকে সেদিকে নজর দেয়ারও আহবান জানান প্রধানমন্ত্রীর।

 

এছাড়াও ইতোমধ্যে ‘আমার বাড়ি-আমার খামার’ প্রকল্পের আওতায় ১০টি গ্রামে বঙ্গবন্ধু মডেল গ্রামের কর্মসূচি শুরু হয়েছে। এ বছর ১০টি সমবায় সংগঠনকে দেয়া হয়েছে এ পুরস্কার।

 

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সমবায় অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. আমিনুল ইসলাম ও বাংলাদেশ ইউনিয়নের সভাপতি শেখ নাদির হোসেন লিপু প্রমুখ।

 

এ সময় দেশের সমবায় খাতের উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরে অনুষ্ঠানে একটি ভিডিও ডকুমেন্টারিও প্রচারিত হয়। এসময় সমবায় অধিদপ্তর থেকে প্রকাশিত ‘সমবায়ের সাফল্য গাঁথা’ শীর্ষক একটি বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন প্রধানমন্ত্রী।

সূত্র: বাসস

 

 

 

মুক্তকন্ঠ২৪

নিয়মিত সকল সংবাদ পেতে মুক্তকন্ঠ২৪.কম এর ফেইসবুকে যুক্ত থাকুন

শেয়ার করুন


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *