বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৯:৩৬ পূর্বাহ্ন

উইন্ডিজকে টপকানোর সুযোগ বাংলাদেশের

দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে বাংলাদেশে অস্থান করছে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দল। গতকালই ঢাকায় পা রেখেছে লঙ্কানরা। আগামী ১৫ মে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে প্রথম ম্যাচটি। এরপর ২৩ মে মিরপুরের শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে গড়াবে সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচ।

আসন্ন এই সিরিজের জয়-পরাজয়ই বদলে দেবে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের পয়েন্ট টেবিলে দুদলের অবস্থান। এখন পর্যন্ত ছয় ম্যাচ খেলে এক জয়ে ১৬.৬৬ শতাংশ পয়েন্ট নিয়ে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ টেবিলের আটে রয়েছে বাংলাদেশ। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরজটি জিতলে সপ্তম স্থানে থাকা ওয়েস্ট ইন্ডিজকে পেছনে ফেলতে পারে টাইগাররা।

অন্যদিকে চার ম্যাচে দুই জয়ে ৫০.০০ শতাংশ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের পঞ্চম স্থানে শ্রীলঙ্কা। বাংলাদেশ সিরিজে সাফল্য পেলে পয়েন্ট টেবিলে লম্বা লাফ দেবে লঙ্কানরা। চতুর্থ স্থানে থাকা পাকিস্তানের পয়েন্ট ৫২.৩৮ শতাংশ। আর তৃতীয় স্থানে থাকা ইন্ডিয়ার পয়েন্ট ৫৮.৩৩ শতাংশ। দুই দলকেই টপকানোর সুযোগ রয়েছে লঙ্কানদের সামনে। তাই বলা যায় সিরিজটি বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা উভয় দলের জন্যই গুরুত্বপূর্ণ।

টেস্টে বরাবরই হতাশ করছে বাংলাদেশ। টাইগাররা সবশেষ টেস্ট সিরিজ জিতেছিল জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। এরপর ঘরের মাঠে পাকিস্তানের কাছে ২-০ ব্যবধানে সিরিজ হারে মুমিনুল বাহিনী।

বছরের শুরুতে নিউজিল্যান্ডে ঐতিহাসিক জয়ে সিরিজ ড্র করার পর দক্ষিণ আফ্রিকায় ফের নাকাল হয় টাইগাররা। সিমন হার্মার এবং কেশব মহারাজের স্পিন জাদুতে কুপোকাত টাইগার ব্যাটাররা হোয়াইটওয়াশ হয় প্রোটিয়াদের আঙিনায়।

টেস্টে দুই দলের সবশেষ দেখায় ঘরের মাঠে বাংলাদেশকে ২০৯ রানে হারায় শ্রীলঙ্কা। দাপুটে জয়ে বাংলাদেশ সফরে আত্মবিশ্বাসে এগিয়ে রাখবে লঙ্কানদের। তাছাড়া সাম্প্রতিক বছরগুলোতে চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টাইগারদের রেকর্ড সুখকর নয়। যা বাড়তি সুবিধা দেবে সফরকারীদের।

স্পিন-বান্ধব মিরপুরেও দাপট দেখাতে পারে লঙ্কানরা। কেন না ছয় স্পিনার নিয়ে সফরে এসেছে শ্রীলঙ্কা। ২০১৮ সালে সবশেষ বাংলাদেশ সফরে মিরপুরে ২১৫ রানের দাপুটে জয় পেয়েছিল লঙ্কানরা। চট্টগ্রামে সফরের প্রথম ম্যাচটি ড্র হয়।

বাংলাদেশ টেস্ট স্কোয়াড
মুমিনুল হক (অধিনায়ক), তামিম ইকবাল, মাহমুদুল হাসান জয়, নাজমুল হোসেন শান্ত, মুশফিকুর রহিম, সাকিব আল হাসান, লিটন দাস, ইয়াসির আলি চৌধুরী, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, তাইজুল ইসলাম, নাঈম হাসান, এবাদত হোসেন, সৈয়দ খালেদ আহমেদ, নুরুল হাসান সোহান, রেজাউর রহমান, শহিদুল ইসলাম, শরিফুল ইসলাম।

শ্রীলঙ্কা টেস্ট স্কোয়াড
দিমুথ করুনারত্নে (অধিনায়ক), কামিল মিশারা, ওশাদা ফার্নান্দো, অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস, কুশল মেন্ডিস, ধনঞ্জয়া ডি সিলভা, কামিন্দু মেন্ডিস, নিরোশান ডিকওয়েলা, দীনেশ চান্দিমাল, রমেশ মেন্ডিস, চামিকা করুনারত্নে, সুনিন্দা লক্ষণ, কাসুন রাজিথা, বিশ্ব ফার্নান্দো, আসিথা ফার্নান্দো, দিলশান মাদুশঙ্কা, প্রবীণ জয়াউইকরামা ও লাসিথ এম্বুলদেনিয়া।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.