May 19, 2022, 6:35 am

এবার ফিনল্যান্ডকে হুঁশিয়ারি রাশিয়ার

ফিনল্যান্ড ন্যাটোতে যোগ দিলে সমুচিত জবাব দেয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছে রাশিয়া। এছাড়া এ ধরনের পদক্ষেপে ফিনল্যান্ডের কঠোর পরিণতি ভোগ করতে হবে বলেও স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছে মস্কো।

রুশ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিবৃতিতে বলা হয়, এ ঘটনা দু’দেশের সম্পর্কের চরম ক্ষতি করবে এবং আঞ্চলিক নিরাপত্তা ও স্থিতিশীলতা নষ্ট করবে।

বৃহস্পতিবার ফিনিশ প্রেসিডেন্ট সউলি নিনিস্তো ও প্রধানমন্ত্রী সানা মারিন জানান, শিগগিরই ন্যাটোর সদস্য পদের জন্য আবেদন করা হবে। গণমাধ্যমের খবর বলছে, ফিনল্যান্ডের সংখ্যাগরিষ্ঠ নাগরিকেরাও ন্যাটোতে যোগদানের পক্ষে। রবিবার এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিক সিদ্ধান্ত জানাবে ফিনল্যান্ড ও সুইডেন।

এদিকে, ন্যাটো মহাসচিব জেনস স্টলটেনবার্গও বলেছেন, আবেদন করলে দ্রুত সদস্যপদ দেয়া হবে দুই দেশকে।

শুধু ফিনল্যান্ডের কর্তাব্যক্তিরাই নয়, সাম্প্রতিক জনমত জরিপও বলছে, ন্যাটোতে যোগদানের বিষয়ে ফিনল্যান্ডের মানুষের সমর্থন বেড়েছে ব্যাপক হারে। ইউক্রেনে রুশ অভিযান শুরুর পর তা বেড়ে গেছে বহুগুণ।

স্থানীয় এক বাসিন্দা বলেন, আমি অনেকদিন ধরেই অপেক্ষা করছিলাম এমন কিছুর জন্য। কারণ রুশ আগ্রাসন থেকে রক্ষা পেতে ন্যাটো জোটে যাওয়া ছাড়া উপায় নেই আমাদের।

এসময় ফিনল্যান্ডের আরেক নাগরিক বলেন, ন্যাটোতে যোগ দেয়া এখন সময়ে চাহিদা। রাশিয়া অনেকদিন ধরেই আমাদের হুমকি দিয়ে আসছে। এখন ওদের বুঝিয়ে দিতে হবে, আমরা কাউকে ভয় পাইনা। একটি স্বাধীন দেশ যেকোন সিদ্ধান্ত নিতে পারে।

ফিনল্যান্ডের এই সিদ্ধান্তে সমর্থন জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রও। হোয়াইট হাউজ প্রেস সেক্রেটারি জেন সাকি বলেন, ন্যাটোতে যোগদানের বিষয়ে সুইডেন ও ফিনল্যান্ডে জনসমর্থন বেড়েছে।

রাশিয়ার সাথে ১৩শ কিলোমিটার সীমান্ত রয়েছে ফিনল্যান্ডের। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর স্নায়ু যুদ্ধের পুরো সময় নিরপেক্ষ থাকা ফিনল্যান্ড ও সুইডেনের ন্যাটোতে যোগদান, ইউরোপের নিরাপত্তা ভারসাম্যে বড় ধরনের প্রভাব ফেলবে বলেই মনে করা হচ্ছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.