শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৯:৩৬ অপরাহ্ন

চট্টগ্রাম টেস্টের শেষ দিনে ছিটকে গেলেন শরিফুল

চট্টগ্রাম টেস্টের শেষ দিনে দল থেকে ছিটকে গেলেন বাঁহাতি পেসার শরিফুল ইসলাম। এই ইনজুরির কারণে চলমান টেস্ট তো বটেই, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আগামী ২৩ মে অনুষ্ঠিতব্য ঢাকা টেস্টেও পাওয়া যাবে না তাকে। হাতে ব্যান্ডেজ করা হয়েছে, অন্তত ২১ দিন মাঠে নামতে পারবেন না এই তরুণ পেসার। বিসিবির সিনিয়র মিডিয়া ম্যানেজার রাবিদ ইমাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে শরিফুল ছিটকে গেলেও তার কনকাশন সাব বা কোনো বদলি খেলোয়াড়ও নামাতে পারবে না বাংলাদেশ। বিশ্ব ফার্নান্দোর ইনজুরির পর যেমনটা পেরেছে লঙ্কানরা। তবে শরিফুলের জায়গায় দ্বিতীয় ইনিংসের শুরু থেকেই ফিল্ডিং করছেন ইয়াসির আলি রাব্বি।

ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) নিয়ম অনুযায়ী মাথায় আঘাত পেলে বা করোনায় আক্রান্ত হলে বদলি খেলোয়াড় নামাতে পারবে যেকোনো দল। যে কি না ব্যাটিং-বোলিং সবই করতে পারবে। কিন্তু শরিফুলের আঘাত হাতে হওয়ায় শুধুমাত্র বদলি ফিল্ডারই নামাতে পেরেছে বাংলাদেশ।

শরিফুল ইস্যুতে বিসিবির প্রধান চিকিৎসক দেবাশিষ চৌধুরী গণমাধ্যমকে বলেন, ‘গতকাল শরিফুল হাতে যে চোট পায় সেখানে ফ্র্যাকচার ধরা পড়েছে। আপাতত তার হাতে ব্যান্ডেজ করা হয়েছে। এখন চট্টগ্রামে আছে। এটা ২১ দিন পর খোলা হবে। সেক্ষত্রে শ্রীলঙ্কা সিরিজে তাকে আর পাওয়া যাবে না। আগামীকাল শরিফুলকে আমরা ঢাকায় নিয়ে আসব। এখানে তার পরবর্তী চিকিৎসা চলবে।’

বুধবার (১৮ মে) ম্যাচের চতুর্থ দিনের তৃতীয় সেশনে বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসের ১৬৭তম ওভারে কাসুন রাজিথার বলে শরিফুল ডান হাতে ব্যথা পান। এরপরও উইকেটে ছিলেন আরও তিন ওভারের বেশি। তবে ১৭১তম ওভারের প্রথম বলে ব্যথার তীব্রতা বেড়ে গেলে আর খেলা চালিয়ে নিতে পারেননি তিনি।

যে কারণে ৯ উইকেটে ৪৬৫ থেকে অলআউট হয়ে যায় স্বাগতিকরা। শরিফুল রিটায়ার্ড আউট হন ১১ বলে ৩ রান করে। এর আগে ম্যাচের প্রথম ইনিংসে ২০ ওভার হাত ঘুরিয়ে তিন মেইডেনসহ ৫৫ রান খরচ করেন শরিফুল। তবে উইকেটের দেখা পাননি।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.