সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ১১:৪৮ অপরাহ্ন

দেশের সংবিধানকে আওয়ামী সংবিধানে পরিণত করেছে সরকার: ফখরুল

বাংলাদেশের সংবিধানকে কেটে ছিড়ে আওয়ামী সংবিধানে পরিণত করেছে সরকার। এমন মন্তব্য করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

সকালে ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপি কার্যালয়ে স্বেচ্ছাসেবক দলের মতবিনিময় সভায় একথা বলেন তিনি। এসময় মির্জা ফখরুল আরো বলেন, আওয়ামী লীগ সন্ত্রাসী কায়দায় ক্ষমতায় বসেছে, আগামীতেও একই কায়দায় ক্ষমতায় বসার পরিকল্পনা করছে। দেশ দিন দিন খারাপের দিকে যাচ্ছে। এ থেকে উত্তরণে সরকারকে পদত্যাগ করে গণতান্ত্রিক পরিবেশ সৃষ্টির আহ্বান জানান বিএনপির মহাসচিব। আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদকের সিদ্ধান্ত নেওয়ার কোনও ক্ষমতা নেই, তাই তার কথায় পাত্তা না দেওয়ার পরামর্শ দেন মির্জা ফখরুল।

‘বিএনপি র‌্যাগিং করে করে ক্ষমতায় আসে’ এ কথার বিরোধিতা করে বিএনপি মহাসচিব বলেন, আওয়ামী লীগ কাউকে ছাড় দেয়নি। এর আগে ১৯৭৩ সালে ব্যালট বক্স হেলিপ্যাডে ঢাকায় নিয়ে এসেছে। নয়টি আসন আওয়ামী লীগ জোর করে নিয়েছে। এভাবেই তারা ক্ষমতাকে নিরঙ্কুশ করতে চায়।

তিনি আরও বলেন, গত ১৪ বছর ধরে সবকিছু পরির্বতন করে আওয়ামী সংবিধানে পরিণত করেছে সরকার। সংবিধান পরিবর্তন করেও জনগণের ক্ষমতাও তারা নিয়ে গেছে।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, আওয়ামী লীগ একদলীয় বাকশাল প্রতিষ্ঠা করেছিল। তাদের মুখে যখন গণতন্ত্রের কথা শুনি, তখন হাস্যকর পরিস্থিতিতে দাঁড়ায়। এটা প্রতারণা ছাড়া কিছু নয়।

তিনি বলেন, বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে পদ্মা সেতু থেকে টুস করে ফেলে দেওয়ার কথা বলেছেন। তা নিন্দনীয়। এমন কথা বলা থেকে বিরত থেকে দেশ যেভাবে খারাপের দিকে যাচ্ছে তা সমাধানে উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান জানান ফখরুল।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.