শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৯:৫৬ অপরাহ্ন

ভারতের কাশ্মিরে সুড়ঙ্গ ধসে ১০ শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার

ভারতের জম্মু কাশ্মিরে সুড়ঙ্গ ধসের ঘটনায় আরো ৯ জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এ নিয়ে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১০ জনে দাড়িয়েঁছে। নিহতদের সবাই শ্রমিক।

কাশ্মিরে উপত্যকাটির একটি পার্বত্য মহাসড়কে সুড়ঙ্গ নির্মাণের সময় এই দুর্ঘটনা ঘটে। প্রায় ৩৬ ঘণ্টা ধরে উদ্ধার কাজ চলার পর ওই ১০ শ্রমিকের দেহ উদ্ধার করা হয়। নিহতদের মধ্যে ৫ জন ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বাসিন্দা। এ দুর্ঘটনার পর জম্মু-কাশ্মির জাতীয় সড়কের একাংশ বন্ধ হয়ে যায়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, সুড়ঙ্গ নির্মাণের জন্য প্রয়োজনীয় সুরক্ষাবিধি অনুসরণ না করাতেই এই দুর্ঘটনা ঘটে।

গত সপ্তাহের বৃহস্পতিবার জম্মু-কাশ্মিরের রামবান জেলায় একটি নির্মানাধীন সুড়ঙ্গে আচমকা ধস নামে। ধসের পর তিনজন শ্রমিক সেখান থেকে বেরিয়ে আসতে পারলেও, ভেতরে আটকে পড়েন ১০ জন শ্রমিক। দুর্ঘটনার খবর পাওয়ার পর থেকেই উদ্ধারকাজ শুরু করা হয়েছিল। শনিবার জানানো হয়, উদ্ধারকাজ শেষ হয়েছে। ভেতরে আটকে থাকা ১০ শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার জম্মু-শ্রীনগর হাইওয়ের খুনি নালা এলাকায় একটি নির্মীয়মাণ সুড়ঙ্গে ধস নামে। উদ্ধারকাজ চলাকালীনই শুক্রবার পাশের মাকেরকোটে এলাকায় পাহাড়ের একটি অংশ ধসে যায়। এর ফলে জম্মু-কাশ্মির জাতীয় সড়কের একাংশ বন্ধ হয়ে যায়।
ধারণা করা হচ্ছে, সুড়ঙ্গ নির্মাণের জন্য প্রয়োজনীয় সুরক্ষাবিধি অনুসরণ না করাতেই দুর্ঘটনা ঘটে থাকতে পারে। ইতোমধ্যেই পুলিশ সুড়ঙ্গ নির্মাণের ওই সংস্থার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেছে।

সুড়ঙ্গের ভেতরে আটকেপড়াদের মধ্যে ৫ জন পশ্চিমবঙ্গের বাসিন্দা। তাদের নাম- যাদব রায় (২৩), গৌতম রায় (২২), সুধীর রায় (৩১), দীপক রায় (৩৩) এবং পরিমল রায় (৩৮)।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.