রবিবার, ০২ অক্টোবর ২০২২, ০৮:২৮ পূর্বাহ্ন

৩০ মে’র পরিবর্তে ঢাকা-দিল্লি বৈঠক হবে ১৮ ও ১৯ জুন

আগামী ৩০ মে বাংলাদেশ-ভারত পররাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের জয়েন্ট কনসালটেটিভ কমিশনের (জেসিসি) সপ্তম বৈঠক অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু নির্ধারিত তারিখের দুদিন আগে বৈঠকটি পেছানো হয়েছে। ৩০ মের পরিবর্তে আগামী ১৮ ও ১৯ জুন নয়াদিল্লিতে অনুষ্ঠিত হবে। এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

শনিবার (২৮ মে) জেসিসির পরামর্শ সভা বাতিলে সিদ্ধান্তের বিষয়টি সাংবাদিকদের জানান পররাষ্ট্র মন্ত্রী এ কে মোমেন। ভারত-বাংলাদেশের দ্বিপাক্ষিক বৈঠকটি চলতি পূর্ব নির্ধারিত তারিখ ৩০ মে হওয়ার কথা থাকলে শেষ মূহুর্তে সেঠি বাতিল করে পুনরায় নির্ধারণ করেছে নয়া দিল্লি।

দিল্লিতে সপ্তম জেসিসি বৈঠকে বাংলাদেশের পক্ষে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন এবং ভারতের পক্ষে দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. সুব্রামনিয়াম জয়শঙ্কর নিজ নিজ দেশের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেবেন।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়, জেসিসি বৈঠকে ভারতীয় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. জয়শঙ্করের সঙ্গে পানি বণ্টনসহ বেশ কিছু দ্বিপাক্ষিক অমিমাংসিত বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেন এর আগে সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, জেসিসি বৈঠক দ্বিপাক্ষিক স্বার্থ নিয়ে আলোচন হবে। আমরা আমাদের সব সমস্যা উত্থাপন করতে পারি। তবে ঢাকা জেসিসির আগে যৌথ নদী কমিশনের (জেআরসি) বৈঠক করার চেষ্টা করবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.